Header Border

ঢাকা, বুধবার, ১৭ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ (শরৎকাল) ৩০.৯৬°সে
শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুরে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের পক্ষে থেকে পুলিশ সুপারকে বিদায় সংবর্ধনা লক্ষ্মীপুরে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের পক্ষে থেকে পুলিশ সুপারকে বিদায় সংবর্ধনা লক্ষ্মীপুরে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে আ’লীগের বিক্ষোভ মিছিল ও আলোচনা সভা লক্ষ্মীপুরে সাংবাদিক রনির পিতার মৃত্যু লক্ষ্মীপুরে মাকে পিটিয়েছে পুত্র? বিচারে বকাবকি করায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার লক্ষ্মীপুরে পদায়ন হওয়া পুলিশ সুপার মাহফুজ্জামানকে রংপুর রেঞ্জ থেকে বিদায় সংবর্ধনা লক্ষ্মীপুরে জুলাই মাসে শ্রেষ্ঠ ওসি রামগঞ্জ থানার ইন্সপেক্টর এমদাদুল হক দালাল বাজার আ’লীগের উদ্যোগ শোক দিবসে আলোচনা সভা, দোয়া ও মিলাদ মাহফিল কমলনগরে শোক দিবসে বঙ্গবন্ধু প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, আলোচনা সভা ও কাঙ্গালি ভোজ অনূর্ধ্ব-১৯ জাতীয় দলের প্রাথমিক স্কোয়াডে লক্ষ্মীপুরের রুপম

দিঘলী ইউপি উপ-নির্বাচন : নৌকার প্রার্থীর বিপক্ষে অপপ্রচার করছে স্বতন্ত্র প্রার্থী!

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার দিঘলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে (ইউপি) উপ-নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা নিয়ে দুই প্রার্থীর পাল্টাপাল্টি অভিযোগ তুলেছে। নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হলেন সাবেক যুবলীগ নেতা সালাউদ্দিন চৌধুরী জাবেদ। তার প্রতিদন্দ্বি হয়ে মাঠে লড়ছেন সাবেক ছাত্রলেতা আলতাফ হোসেন খাঁন। তার প্রতীক ঘোড়া। দলীয় সিদ্ধান্তের বাহিরে গিয়ে তিনি বিদ্রোহী প্রার্থী হয়েছেন।

নির্বাচনী মাঠে আলতাফ হোসেন আওয়ামী লীগের মনোনীত সালাউদ্দিন জাবেদের বিরুদ্ধে প্রচারণায় বাঁধা দেওয়ার অভিযোগ তুললে তার বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযোগ তোলেন নৌকার প্রার্থী।

এছাড়া স্বতন্ত্র প্রার্থী নিজেকে আলোচনায় আনতে বিভিন্ন অপপ্রচার ও গুজব ছড়াচ্ছেন বলে দাবি করেছে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা। আর নৌকার প্রার্থীও বলছে- স্বতন্ত্র প্রার্থী যে সব বিষয়ে অভিযোগ করছেন, তার কোন ভিত্তি নেই।

পুলিশ বলছে, অভিযোগগুলো ছোট-খাটো। কারো বিরুদ্ধে কোন সুনির্দিষ্ট অভিযোগ নেই। তবে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় পুলিশ সর্তক অবস্থানে আছে।

নির্বাচনী এলকায় গিয়ে দেখা গেছে, প্রার্থীদের প্রচার প্রচারণা জমে উঠেছে। দুই প্রার্থীর পক্ষে ভোট ছেয়ে বিভিন্ন এলাকায় মাইকিং করা হচ্ছে। প্রার্থীরাও ভোটারদের কাছে গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছেন।

আগামী ২৭ জুলাই এ ইউনিয়নে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) এর মাধ্যমে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

প্রচারণায় বাঁধা এবং ভোট গ্রহণের দিন নৌকার প্রার্থী কেন্দ্রে প্রভাব বিস্তার করবে এমন অভিযোগ এনে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলতাফ হোসেন রির্টানিং কর্মকর্তা, থানা পুলিশসহ বিভিন্ন দফতরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অন্যদিকে স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিরুদ্ধে কর্মী পেটানোর অভিযোগ তুলেছেন নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সালাউদ্দিন চৌধুরী জাবেদ।

জাবেদ বলেন, আমি আমার অবস্থান থেকে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছি। এ এলাকা আওয়ামী লীগের ঘাঁটি। এছাড়া আমি আওয়ামী পরিবারের ত্যাগী সন্তান এবং ত্যাগী কর্মী। দলের লোকজনসহ ইউনিয়নবাসী আমাকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে৷ আমি একটি নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানের পক্ষে। জনগণের ভোটের মাধ্যমে আমি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে চাই।

স্বতন্ত্র প্রার্থী আলতাফ হোসেনের করা অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, আমার বিরুদ্ধে বিভিন্ন দফতরে যে অভিযোগুলো করা হয়েছে- সেগুলো একেবারে ভিত্তিহীন। স্বতন্ত্র প্রার্থী তার মতো করে প্রচারণা চালাচ্ছে। কেউ তাকে বাঁধা বা হুমকি দিচ্ছে না। সে বলে- আমার ভয়ে নাকি নির্বাচনী এজেন্ট দিতে পারবে না। ভোটের বাকি আরও ৭-৮ দিন। এ মুহূর্তে এজেন্ট দেওয়ার প্রশ্ন আসে কেন? নিশ্চয় সে এজেন্ট দেওয়ার মতো লোক খুঁজে পাচ্ছে না, তাই ভোটের আগেই নিজেকে আলোচনায় আনতে এমন অসত্য অভিযোগ তুলেছেন। অভিযোগগুলো থানা পুলিশসহ বিভিন্ন সংস্থা তদন্ত করছে, সত্যতা পেলে আমি নির্বাচনী আইন অনুযায়ী শাস্তি পেতে রাজি আছি।

স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযোগ তুলে বলেন, আমার অ্যামেরিকা প্রবাসী ছোটভাই আমার নির্বাচনী সমন্বয়ক। সে প্রচারণার কাজে বের হওয়ায় তার উপর হামলা করেছে আলতাফের লোকজন। আমি থানায় লিখিতভাবে জানিয়েছি।

এছাড়া ফেসবুকের বিভিন্ন ভূয়া আইডি থেকে দলীয় নেতাকর্মী এবং তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালানো হচ্ছে বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে মঙ্গলবার বিকেলে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলতাফ হোসেন বলেন, নৌকার লোকজন আমার পোষ্টার ছিড়ে ফেলছে, মাইক ভাংচুর করছে। আমার লোকজনকে হুমকি দিচ্ছে। তাই আমি প্রশাসনের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।

সুনির্দিষ্ট ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, সোমবার রাতে এবং মঙ্গলবার সকালে প্রচারনা চালানোর সময় তার হ্যান্ড মাইক ভাংচুর করেছে। নির্বাচন আচরণবিধি অনুসারে সকালে প্রচারনা চালানোর নিয়ম আছে কিনা- জানতে চাইলে তিনি বলেন, নৌকার প্রার্থীও প্রচারনা করে, তাই হ্যান্ড মাইক নিয়ে আমার একজন কর্মী প্রচারনায় নেমেছিল।

এসব বিষয়ে চন্দ্রগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মোসলেহ উদ্দিন  বলেন, যে সকল বিষয়ে প্রার্থীরা অভিযোগ আনতেছে, সেগুলো একেবারে ছোটখাটো। অভিযোগে সুনির্দিষ্ট কোন ঘটনার উল্লেখ করা নেই। তাই ব্যবস্থাও নেওয়া যাচ্ছে না। কোন প্রার্থী যদি প্রচানায় বাঁধাপ্রাপ্ত হয় সাথে সাথে পুলিশকে জানাতে বলেছি, পুলিশ তাদের নিরাপত্তা দিবে। এছাড়া নির্বাচন পর্যন্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সর্তক অবস্থানে আছে। সেখানে একটি শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

এদিকে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় দিঘলী বাজারে দুইপক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। অন্যদিকে বুধবার দুপুরে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলতাফ হোসেন সংবাদ সম্মেলন করে নৌকার প্রার্থীর বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ তোলেন।

শেয়ার করুন:

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

লক্ষ্মীপুরে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের পক্ষে থেকে পুলিশ সুপারকে বিদায় সংবর্ধনা
লক্ষ্মীপুরে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের পক্ষে থেকে পুলিশ সুপারকে বিদায় সংবর্ধনা
লক্ষ্মীপুরে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে আ’লীগের বিক্ষোভ মিছিল ও আলোচনা সভা
লক্ষ্মীপুরে সাংবাদিক রনির পিতার মৃত্যু
লক্ষ্মীপুরে মাকে পিটিয়েছে পুত্র? বিচারে বকাবকি করায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার
লক্ষ্মীপুরে পদায়ন হওয়া পুলিশ সুপার মাহফুজ্জামানকে রংপুর রেঞ্জ থেকে বিদায় সংবর্ধনা

আরও খবর

সম্পাদক প্রকাশক: এ.কে.এম. মিজানুর রহমান মুকুল